December 1, 2023
agartala,tripura
খেলা

অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম একদিনের ম্যাচে ৫ উইকেটে জিতল ভারত

জনতার কলম ওয়েবডেস্ক :- অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে প্রথম ম্যাচে ভালো বোলিং ও ব্যাটিংয়ের সুফল পেল ভারত। ৮ বল বাকি থাকতেই ৫ উইকেটে জিতে গেল তারা। নিজের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কেরিয়ারে সবচেয়ে ভালো বল করলেন মোহম্মদ শামি।৫১ রানে তিনি অস্ট্রেলিয়ার ৫ উইকেট দখল করেন। তিনিই হন ‘প্লেয়ার অফ দ্য ম্যাচ’।মোহালিতে পঞ্জাব ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের আই এস বিন্দ্রা স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচে জয়ের জন্য প্রয়োজনীয় ২৭৭ রান তাড়া করতে গিয়ে ভারতের গোড়ার দিকের চার ব্যাটসম্যান অর্ধশত রান করেন। অস্ট্রেলিয়া প্রথম ব্যাট করে ২৭৬-এ অল আউট হয়ে যায়। প্রত্যুত্তরে ভারত করে ৫ উইকেটে ২৮১। ফলে ভারত ৫ উইকেটে জেতে।জয়ের জন্য ২৭৭ রান তাড়া করতে গিয়ে ভালোই শুরু করে ঋতুরাজ গায়কোয়াড় ও শুভমন গিলের ওপেনিং জুটি। প্রথম উইকেটে তাঁরা যোগ করেন ১৪২ রান। ৭৭ বলে ৭১ রান করে অ্যাডাম জাম্পার বলে এলবিডব্লিউ আউট হন ঋতুরাজ। ভারতের জয় নিয়ে তখন থেকেই কোনো সন্দেহ ছিল না। কিন্তু দলের স্কোরের সঙ্গে মাত্র ৯ রান যোগ হতেই আরও দুই ব্যাটসম্যান আউট হতে একটু চিন্তায় পড়ে যান ভারতীয় সমর্থকরা। মাত্র ৩ রান করে শ্রেয়স আইয়ার যখন রান আউট হন তখন দলের রান ছিল ১৪৮। এর পর দলের স্কোরের সঙ্গে মাত্র ৩ রান যোগ হওয়ার পর আউট হন শুভমন গিল।অধিনায়ক কে এল রাহুল এবং ঈশান কিষান দলের হাল ধরার চেষ্টা করেন। তাঁরা রান নিয়ে যান ১৮৫-তে। ঈশান কিষান ২৬ বলে ১৮ রান করে প্যাট কামিংস-এর বলে ইংলিশকে ক্যাচ দিয়ে আউট হন। এর পর ৫ম উইকেটের জুটিতে রাহুল এবং সূর্যকুমার যাদব ৮০ রান যোগ করেন। ৪৬.৪ ওভারে দলের ২৬৫ রানে সূর্যকুমার যখন আউট হন তখন ভারতের জয় নিয়ে কোনো সংশয় ছিল না।রাহুলের সঙ্গী হন রবীন্দ্র জাদেজা। তাঁরা দু’জনে অপরাজিত অবস্থায় থেকে ভারতকে জয়ে পৌঁছে দেন। ৪৯তম ওভারের চতুর্থ বলে সিয়ান অ্যাবটকে ছয় মেরে জয় এনে দেন অধিনায়ক কে এল রাহুল। ৬৩ বলে ৫৮ রান করে নট আউট থাকেন রাহুল। জাদেজা নট আউট থাকেন ৩ রানে। এর আগে টসে জিতে অস্টেলিয়াকে ব্যাট করতে পাঠায় কে এল রাহুলের ভারত। দ্বিতীয় উইকেটে ডেভিড ওয়ার্নার ও স্টিভ স্মিথের ৯৪ রান এবং ষষ্ঠ উইকেটে জোশ ইংলিশ ও মার্কাস স্টয়নিসের ৬২ রানের পার্টনারশিপের সুবাদে অস্ট্রেলিয়ার রান পৌঁছোয় ২৭৬-এ। মোহম্মদ শামি এবং রবীন্দ্র জাদেজা ঠিক সময়ে আঘাত হেনে অস্ট্রেলিয়াকে ওই রানে আটকে রাখে। শামির বিধ্বংসী বোলিং বেশি দূর এগোতে দেয়নি তাদের।মাত্র ৪ রানে প্রথম উইকেট হারায় অস্ট্রেলিয়া। শামির বলে শুভমন গিলকে ক্যাচ দিয়ে প্যাভিলয়নের পথ ধরেন মিশেল মার্শ। এর পরই জুটি বাঁধেন ডেভিড ওয়ার্নার এবং স্টিভ স্মিথ। তাঁরা ক্রমশই মারমুখী হয়ে উঠছিলেন। ঠিক সময়ে আঘাত হানেন জাদেজা। দলের ৯৮ রানে ওয়ার্নারকে ফিরিয়ে দেন তিনি। ৫৩ বলে ৫২ রান করেন ওয়ার্নার।এর পর নিয়মিত ব্যবধানে একে একে বিদায় নেন স্টিভ স্মিথ, মার্নাস লাবুশানে এবং ক্যামেরুন গ্রিন। ৬০ বলে ৪১ রান করে শামির বলে বোল্ড হন স্মিথ। লাবুশানে আউট হন রবিচন্দ্র অশ্বিনের বলে রাহুলের হাতে স্টাম্পড হয়ে। এর পর জুটি বাঁধেন জোশ ইংলিশ এবং মার্কাস স্টয়নিস। শেষ পর্যন্ত সেই জুটি ভাঙেন শামি। দলের ২৪৮ রানে স্টয়নিস ব্যক্তিগত ২৯ রানে শামির বলে বোল্ড হন।এর পর মাত্র ২ রান যোগ হওয়ার পরে আউট হয়ে যান জোশ ইংলিশ। জোশ ৪৫ বলে ৪৫ রান করে জসপ্রীত বুমরাহের বলে তাঁকেই ক্যাচ দিয়ে আউট হন। অস্ট্রেলিয়ার শেষ ৩টি উইকেটে যোগ হয় ২৬ রান। ৫১ রানে ৫টি উইকেট দখল করেন মোহম্মদ শামি।

Leave feedback about this

  • Quality
  • Price
  • Service